বি.দ্রঃদৈনিক নতুন ভাবনাপত্রিকায় প্রকাশিত সকল লেখার দায়ভার সম্পূর্ন লেখকের/প্রতিনিধির।আমরা লেখক প্রতিনিধির চিন্তা ও মতামতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল।প্রকাশিত লেখার সাথে মাধ্যমটির সম্পাদকীয় নীতির মিল সবসময় নাও থাকতে পারে।তাই যে কোনো লেখার জন্য অত্র পত্রিকার কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।

তাজা খবর

নাজিরপুরে ইউপি সদস্যের ঘের  থেকে গাঁজা গাছ উদ্ধার

পিরোজপুর প্রতিনিধি: পিরোজপুরের নাজিরপুরে ইউপি সদস্যের   ঘের থেকে চাষ করা গাঁজা গাছ উদ্ধার করেছে থানা  পুলিশ।  বৃহস্পতিবার (১৮ ফেব্রুয়ারী)  দুপুরে  পুলিশ অভিযান চালিয়ে ওই মৎস্য ঘেরে উপরের জমিতে চাষ করা  ১৪টি গাঁজা গাছ উদ্ধার করেন।
জানা গেছে, উপজেলার শেখমাটিয়া ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের (খেজুরতলা)  ইউপি সদস্য  (মেম্বার) মো. বাবুল খানের মালিকানাধীন মৎস্য ও সবজি ঘেরে চাষ করা ১৪টি গাঁজা গাছ উদ্ধার করেন থানা পুলিশ। ঘের   মালিক বালুল খান ওই ইউনিয়ন আ’লীগের যুগ্ম সাধারন সম্পাদক। ওই দিন দুুপরে থানা পুলিশের এসআই মো. দেলোয়ার হোসেন, ফারুক হোসেন, সাইফুল হোসেনের নেতৃত্বে একটি দল ওই সব গাঁজা গাছ উদ্ধার করেন।
থানা পুলিশের এসআই দেলোয়ার হোসেন জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ওই জমিতে গাঁজা চাষের খবর পাই। সেখানে গিয়ে দেখা যায়   সবজির সাথে গাঁজা চাষ করা হচ্ছে।  সেখানে অভিযান চালিয়ে ১৪টি গাঁজা গাছ উদ্ধার করা হয়।
ওই ইউনিয়ন যুবলীগ নেতা স্থাণীয় মো. এহসানুল কবির তুহিন জানান, ইউপি সদস্য বাবুল খানের ওই জমিতে দীর্ঘ দিন ধরে গাঁজা চাষ হচ্ছে। তিনি স্থাণীয় প্রভাবশালী হওয়ায় কেউ তার ওই জমিতে যাওয়ার সাহস পায় না।  গত ২/৩ দিন আগেও সে কিছু গাঁজা গাছ কেটে বিক্রি করেছেন বলে অভিযোগ রয়েছে।
ইউপি সদস্য মো. বাবুল খান মুঠো ফোনে জানান, গত প্রায় ৭/৮ বছর ধরে ওই জমি আমি খাচ্ছি না। জমিটি আমার ভগ্নিপতি মো. মনির ডাকুয়া চাষ করছেন। কেউ আমাদের বাজাতে ওই জমিতে গাজা চাষ করতে পারে।
নাজিরপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আশ্রাফুজ্জামান জানান, বিষয়টি তদন্ত করে এর সাথে জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনী ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

Alert! This website content is protected!