বি.দ্রঃদৈনিক নতুন ভাবনাপত্রিকায় প্রকাশিত সকল লেখার দায়ভার সম্পূর্ন লেখকের/প্রতিনিধির।আমরা লেখক প্রতিনিধির চিন্তা ও মতামতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল।প্রকাশিত লেখার সাথে মাধ্যমটির সম্পাদকীয় নীতির মিল সবসময় নাও থাকতে পারে।তাই যে কোনো লেখার জন্য অত্র পত্রিকার কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।

তাজা খবর

ফিসিং ট্রলার সহ আটক ১৬ ভারতীয় জেলে কারাগারে

বাগেরহাট প্রতিনিধি // সৈকত মন্ডলঃ

সমুদ্রসীমা লংঘন করে বঙ্গোপসাগরে বাংলাদেশ জলসীমায় অনুপ্রবেশ ও মাছ শিকারের অভিযোগে এফ,বি, মঙ্গল চন্ডী-৭ নামক একটি ফিসিং ট্রলার সহ আটক ১৬ ভারতীয় জেলেকে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকালে মামলা দায়ের শেষে বাগেরহাটের মোংলা থানা পুলিশ এসব ভারতীয় জেলেকে আদালতে প্রেরণ করলে বিচারকের নির্দেশে তাদের কারাগারে পাঠানো হবে বলেও জানায় মোংলা থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ ইকবাল বাহার চৌধুরী।

গত মঙ্গলবার রাত ১০টা ৫০ মিনিটের সময় কোস্ট গার্ড পশ্চিম জোনের জাহাজ “অপরাজেয় বাংলা” গভীর সমুদ্রে টহলরত অবস্থায় বাংলাদেশের জলসীমায় অবৈধভাবে প্রবেশকারী এ ফিসিং ট্রলারটি দেখতে পেয়ে জেলেসহ তা আটক করে। বাংলাদেশ-ভারত জলসীমার ১০.২ নটিকাল মাইল ভিতরে এদেশের জলসীমায় মাছ ধরছিল ভারতীয় জেলেরা। বুধবার বিকেলে জাল-মাছ ও ট্রলারসহ আটক ভারতীয় জেলেদের মোংলা থানা পুলিশের কাছে সোপর্দ করে কোস্টগার্ড। পরে এ ঘটনায় কোষ্টগার্ডের পেটি অফিসার মোঃ জাহিদুল ইসমলাম বাদী হয়ে মোংলা থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।

আটক ভারতীয় জেলেদের বাড়ী ভারতের দক্ষিন-চব্বিশ পরগনা জেলার বিভিন্ন এলাকায় বলে জানায় পুলিশ। উল্লেখ্য গত ২ ডিসেম্বর সমুদ্রসীমা লংঘন ও মাছ শিকারের অভিযোগে এফবি শিবানী নামের একটি ফিসিং ট্রলার সহ ১৭ ভারতীয় জেলেকে আটক করেছিল কোস্টগার্ড পশ্চিম জোনের সদস্যরা।

Alert! This website content is protected!