বি.দ্রঃদৈনিক নতুন ভাবনাপত্রিকায় প্রকাশিত সকল লেখার দায়ভার সম্পূর্ন লেখকের/প্রতিনিধির।আমরা লেখক প্রতিনিধির চিন্তা ও মতামতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল।প্রকাশিত লেখার সাথে মাধ্যমটির সম্পাদকীয় নীতির মিল সবসময় নাও থাকতে পারে।তাই যে কোনো লেখার জন্য অত্র পত্রিকার কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।

তাজা খবর

মোকামতলা ইট ভাটায় মাটি দেওয়ায় বিপাকে কয়েকটি গ্রামের মানুষ

উৎপল কুমার, বগুড়া জেলা প্রতিনিধিঃ
ইট ভাটার মাটির যোগান দিতে প্রতি বছরই কোরবানি দিতে হয় ফসলি জমির। এই মাটি ক্রয় বিক্রয়ে যারা জড়িত থাকে তাদের ভাটা মৌসুম চালু হওয়ার পূর্বে থেকেই টার্গেট থাকে এলাকায় কার উঁচু জমি আছে,ভিটে জমি আছে গ্রামের কোন কোন মানুষের। সেই ঝোপ বুঝে কোপ মারে ভুমি দস্যুরা।
তেমনি বিপাকে পড়েছে বগুড়া জেলার শিবগঞ্জ উপজেলার দেউলী ইউনিয়নের চক দেউলী গ্রামের সাধারণ খেটে খাওয়া মানুষ। সেখানে প্রতিদিন ৭/৮টি ট্রাক ২৪ ঘন্টা চলাচলে শব্দ দুষন ও  ধুলাবালি দিয়ে একাকার, তাই জনজীবন অতিষ্ঠ হয়ে পরেছে আশেপাশে বেশ কয়েকটি গ্রামের মানুষের। আশেপাশের গ্রামের মানুষের অভিযোগ ভালো রাস্তা গুলো ভেঙে যাচ্ছে খুব তাড়াতাড়ি । গ্রামের রাস্তা পারাপারে সমস্যা হচ্ছে ছোট বাচ্চা, গরু-ছাগল ও বৃদ্ধ মানুষের।
সরেজমিন এ গিয়ে দেখা যায় চক দেউলী গ্রামের লিয়াকৎ আলী মাস্টার, পিতা আহম্মদ প্রধান এর ফসলি জমির মাটি ক্রয় করেন এম,জি,সি ভাটার সর্দার মিলন।
ইচ্ছামতো জমিটি গভীর করেছেন তারা যা আশেপাশের জমির জন্য ব্যাপক সমস্যা ও ভাঙনের হুমকি স্বরুপ। তবে এ ব্যাপারে মুখ খুলেছেন এলাকার ভুক্ত ভোগী জনগন চক দেউলী গ্রামের আব্দুর রউফ, পিতা আঃ বাছেদ পরামানিক এর ছেলে, এবং একই গ্রামের নাম না প্রকাশে ইচ্ছুক এক মহিলা বলেন আমরা প্রশাসনের কাছে এর প্রতিকার চাই। বর্তামান চেয়ারম্যান মোঃ আব্দুল হাই প্রধান এ বিষয়ে বলেন  জনগণের স্বার্থে আমি প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ করছি যেটা করলে আমার জনগণের সুবিধা হবে সেই পদক্ষেপ জরুরী ভাবে কার্যকর করা হোক।
Alert! This website content is protected!