বি.দ্রঃদৈনিক নতুন ভাবনাপত্রিকায় প্রকাশিত সকল লেখার দায়ভার সম্পূর্ন লেখকের/প্রতিনিধির।আমরা লেখক প্রতিনিধির চিন্তা ও মতামতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল।প্রকাশিত লেখার সাথে মাধ্যমটির সম্পাদকীয় নীতির মিল সবসময় নাও থাকতে পারে।তাই যে কোনো লেখার জন্য অত্র পত্রিকার কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়।

তাজা খবর

সাতক্ষীরায় দুস্থ প্রতিবন্ধীদের মাঝে কম্বল বিতরণ সহ ৯ দফা দাবিতে মানববন্ধন

শাহরিয়ার কবির ব্যুরো চিফ খুলনাঃ- সাতক্ষীরায় দুস্থ প্রতিবন্ধীদের মাঝে কম্বল বিতরণ সহ ৯ দফা দাবি বাস্তবায়নের লক্ষ্যে প্রতিবন্ধীদের মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। মঙ্গলবার ২৯ ডিসেম্বর সকাল ১০টায় সাতক্ষীরা নিউ মার্কেটস্থ শহীদ আলাউদ্দীন চত্ত্বরে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে সভাপতিত্ব করেন, মো: রফিকুল ইসলাম।

সাতক্ষীরা প্রতিবন্ধী পুনর্বাসন কল্যাণ সমিতির আয়োজনে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন প্রতিবন্ধী পুনর্বাসন সমিতির মহাসচিব ও জাতীয় দৃষ্টি প্রতিবন্ধী সংস্থা সাতক্ষীরা শাখার সম্পাদক শেখ আবুল কালাম আজাদ।

প্রতিবন্ধী নারী উন্নয়ন সংস্থার সভানেত্রী নুরজাহান খাতুন, রেহেনা পারভীন, সাতক্ষীরা প্রতিবন্ধী দাবী আদায় পরিষদের সভাপতি মোঃ শফিকুল ইসলাম, প্রতিবন্ধী পুনর্বাসন কল্যাণ সমিতির ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ আব্দুস সামাদ, প্রতিবন্ধী উন্নয়ন কেন্দ্র দেবহাটা এর সদস্য সুশান্ত কুমার, প্রতিবন্ধী পুনর্বাসন উন্নয়ন সমিতি কালিগঞ্জ উপজেলার সাধারণ সম্পাদক গোলাম রব্বানী, দৃষ্টি প্রতিবন্ধী কওসার আলী, আব্দুস সেলিম, প্রতিবন্ধী নারী নির্যাতন কমিটির সভাপতি আব্দুস সাত্তার, মো: সাইদুল ইসলাম প্রমুখ।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন বর্তমান শীতে প্রতিবন্ধীরা অত্যান্ত কষ্টে আছে। ৫০০ শত প্রতিবন্ধীদের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণের জন্য জেলা প্রশাসকের কাছে বার বার আবেদন করা হলেও কোন শীতবস্ত্র পাওয়া যায়নি। প্রতিবন্ধীদের তালিকায় অপ্রতিবন্ধীরা ঢুকে পড়ে প্রতিবন্ধীদের অধিকার ধ্বংস করছে ও সরকারি সুযোগ সুবিধা থেকে প্রকৃত প্রতিবন্ধীরা বঞ্চিত আছে।

বক্তারা আরো বলেন সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালের নার্স হোসনেয়ারা খাতুনের অপসারনের জন্য সিভিল সার্জন ও জেলা প্রশাসক মহোদয়ের আছে ৯দফা দাবি সম্বলিত আবেদন করা হয়েছে কিন্তু তার পরেও দাবী বাস্তবায়নের কোন লক্ষণ আমরা দেখতি পায়নি। দ্রুত সময়ের মধ্যে ৯দফা দাবি বাস্তবায়ন না হলে সড়ক অবরোধ, জেলা প্রশাসকের কার্যালয় ঘেরাও সহ কঠিন কর্মসূচি পালন করা হবে।

দাবি গুলো হচ্ছে, প্রতিবন্ধী তালিকায় কিছু অপ্রতিবন্ধী ব্যক্তিরা অন্তর্ভূক্ত হয়ে ভাতার টাকা গ্রহণ করছে। এদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া। ত্রাণ মন্ত্রালয়ের বরাদ্ধকৃত ত্রণের মালামাল শতকরা ১৫ ভাগ প্রতিবন্ধীদের বরাদ্ধ দেওয়া। পর সম্পদ লোভী, বেআইনী কর্মকান্ডে লিপ্ত, দুর্নীতিবাজ ও সন্ত্রাসী সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালেল নার্স হোসনেয়ারা খাতুনের অপসরণ।

বাসে প্রতিবন্ধীদের যাতায়াতের জন্য আইন অনুযায়ী সংরক্ষিত আসন চিহ্নিত করা। নির্যাতিত প্রতিবন্ধী নারি শিশু ও অন্যান্য প্রতিবন্ধীরা নির্যাতিত হলে তাৎক্ষণিক ভাবে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ। প্রতিবন্ধী বিষয়ক সকল কমিটিতে প্রতিবন্ধী স্ব সংগঠনের প্রতিনিধি অন্তর্ভূক্ত করা। নামধারী ভুয়া প্রতিবন্ধী সংগঠনের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা।

প্রতিবন্ধী পুনর্বাসন কল্যাণ সমিতির দৈনন্দিন কার্যক্রম পরিচালনার জন্য খাস জমি বরাদ্ধ দেওয়া। প্রতিবন্ধী পুনর্বাসন কল্যাণ সমিতির কার্যক্রম বাস্তবায়নের জন্য স্থায়ী তহবিলের ব্যবস্থা করা

Alert! This website content is protected!